,

আইসোলেশনে জাস্টিন ট্রুডো – দৈনিক জনসংযোগ

কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো স্বেচ্ছায় আইসোলেশনে থাকার কথা জানিয়েছেন। ইতোমধ্যে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত তার স্ত্রী সুস্থ হয়ে উঠেছেন।

রবিবার (২৯ মার্চ) জাস্টিন বলেন, সোফি গ্রিগোরি ট্রুডো শনিবার তার চিকিৎসকদের কাছ থেকে করোনাভাইরাস থেকে সুস্থ হয়ে উঠার ছাড়পত্র পেয়েছেন।

ট্রুডো বলেন, আমি আমার আইসোলেশন অব্যাহত রাখবো ‘কানাডার স্বাস্থ্যবিধি ও সুপারিশমালা অনুযায়ী ।’

এদিকে প্রধানমন্ত্রী নিজের করোনাভাইরাসের কোনো উপসর্গ না থাকলেও তিনি কোভিড-১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত স্ত্রীর সঙ্গে একই ছাদের নিচে বসবাস করছিলেন।

অটোয়ায় তার রিদিয়াউ কটেজ বাসভবনের বারান্দা থেকে সাংবাদিকদের ব্রিফিং কালে ট্রুডো বলেন, ‘টেলিফোন ও ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কীভাবে অনেক কাজ করা যায় কানাডার কর্মীরা তা করে দেখিয়েছেন। প্রকৃতপক্ষে এই কাজটি আমি করে যাচ্ছি।’

যেহেতু চিকিৎসকরা সোফি গ্রিগোরি ট্রুডো প্রকৃতপক্ষে কখন ভাইরাস মুক্ত হয়েছেন তা না জানায় প্রধানমন্ত্রী তার নিজের আরও ১৪ দিন অবরুদ্ধ থাকার কথা বলেছেন।

গত ১২ মার্চ লন্ডন সফর থেকে ফেরার পর করোনাভাইরাস পরীক্ষায় তার স্ত্রীর এ ভাইরাস ধরা পড়ে। তারপর থেকেই প্রধানমন্ত্রী স্বেচ্ছায় আইসোলেশনে চলে যান।